দত্তক গ্রামে ত্রাণ পৌঁছে দিলেন বিদ্যাসাগর বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক-অধ্যাপিকারা - SAIKOTBHUMI

Breaking

Saturday, May 16, 2020

দত্তক গ্রামে ত্রাণ পৌঁছে দিলেন বিদ্যাসাগর বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক-অধ্যাপিকারা


 মেদিনীপুর : করোনার করাল থাবা থেকে দেশকে বাঁচাতে  গোটা দেশজুড়ে চলছে লকডাউন । এই লকডাউনে ফলে বিশ্ববিদ্যালয়ের দত্তক নেওয়া গ্রামগুলোর কর্মহীন, অসহায়, দুঃস্থ মানুষদের পাশে দাঁড়াতে এগিয়ে এলো বিদ্যাসাগর বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি বা ভুটা (VUTA)। বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতি নিজেদের সদস্য-সদস্যাদের কাছ থেকে আর্থিক অনুদান সংগ্রহ করে মানুষের পাশে দাঁড়ালেন। ভুটার পক্ষ থেকে বিশ্ববিদ্যালয় ও মেদিনীপুর শহর সংলগ্ন এবং বিদ্যাসাগর বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষ থেকে  দত্তক নেওয়া,কোলসান্ডা, আমছটা, গোলাপীচক, মুড়াডাঙ্গা, বাগডুবি, কুতুরিয়া, খয়েরুল্লা চক্ পূর্ব ও পশ্চিম, গোপগড়,ফুলপাহাড়ী,মালিয়াড়া এই ১১ টি গ্রামের প্রায় ৭০০ দুঃস্থ পরিবারের হাতে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করা হয় দুদিন দুটি পর্যায়ে।মঙ্গলবার প্রথম পর্বে সংগঠনের কর্মসমিতির উদ্যোগে দত্তক নেওয়া মেদিনীপুর সদর ব্লকের অন্তর্গত আদিবাসী ও  কুড়মি অধ্যুষিত প্রান্তিক ৮ টি গ্রামের প্রায় ৪৫০ টি পরিবারের মধ্যে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করা হয় ।এই আটটি গ্রামে ত্রাণসামগ্রী হিসাবে আলু, সোয়াবিন, মুসুর ডাল, সরিষার তেল, চিনি, বিস্কুট, নুন, সাবান এবং মাস্কসহ  নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্য তুলে দেওয়া হয় । অন্যদিকে শনিবার (১৬/৫/২০)দ্বিতীয় পর্যায়ে বাকি ৩ টি গ্রামের মোট ২৫০ টি পরিবারের হাতে ত্রাণ বিতরণ করা হয় । আর্থিক দিক থেকে পিছিয়ে থাকা এই গ্রামগুলিতে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখেই এই ত্রাণ  কর্মসূচি  সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন হয় । কর্মসূচি সুষ্ঠুভাবে রূপায়নে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ ও স্থানীয় প্রশাসনের কর্মকর্তারা প্রত্যেকেই সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দেন । ভুটার পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, সবার সহযোগিতা নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতি আগামী দিনে আরও বেশি সংখ্যক মানুষের পাশে দাঁড়ানোর চেষ্টা করবে, পাশাপাশি তাঁদের এই মানবিক প্রয়াস কিছুটা হলেও মানুষের কাজে লাগলে তাঁরা খুশি হবেন। বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষাদের বেশ কয়েকজন স্বেচ্ছাসেবক উপস্থিত ছিলেন।

Pages