‘রাজ্যে করোনায় মৃত ৩, বাড়িয়ে লিখবেন না’, অনুরোধ মমতার - SAIKOTBHUMI

Breaking

Wednesday, April 1, 2020

‘রাজ্যে করোনায় মৃত ৩, বাড়িয়ে লিখবেন না’, অনুরোধ মমতার




কলকাতা :  রাজ্যের করোনা পরিস্থিতি কেমন, তার বিস্তারিত হিসেব দিয়ে দিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তবে তাঁর পরিসংখ্যান অনুযায়ী, করোনায় এ রাজ্যের এখনও পর্যন্ত মৃতের সংখ্যা তিনেই আটকে। আজ নবান্নে চিকিৎসকদের সঙ্গে নিয়ে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হন মুখ্যমন্ত্রী। সেখানেই তিনি হিসেব দিয়ে বললেন, “আজ বিকেল পর্যন্ত রাজ্যে ৩৭ জনের করোনা পজিটিভ ধরা পড়েছে। তার মধ্যে ৩ জন সুস্থ হয়ে ফিরে গিয়েছেন, ৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। তাই এই মুহূর্তে পজিটিভ ৩১ জন।” 




তবে মুখ্যমন্ত্রীর এই হিসেবের বাইরে মঙ্গলবার হাওড়ার এক বেসরকারি হাসপাতালে একজনের মৃত্যু হয়, যিনি করোনা পজিটিভ ছিলেন। আর আজ সকালে বেলঘরিয়ার এক নার্সিংহোমে মারা গিয়েছেন আড়িয়াদহের এক বাসিন্দা। গতকাল তাঁর রিপোর্টেও COVID-19 ধরা পড়েছিল। এছাড়া সোমবার এনআরএস হাসপাতালে এক মহিলার মৃত্যু হয়। তাঁর নমুনা পরীক্ষার রিপোর্ট অবশ্য এখনও আসেনি। অথচ মুখ্যমন্ত্রীর কথা অনুযায়ী, এঁদের কারও মৃত্যু করোনায় হয়নি। তার পিছনে অন্য কারণ ছিল। এই বিষয়ে তিনি সাংবাদিকদেরও সতর্ক করে দেন। বলেন, “সকাল থেকে ব্রেকিং নিউজের নামে সংখ্যা বাড়াচ্ছেন, বলছেন – লাফিয়ে বাড়ছে মৃত্যু। দয়া করে দায়িত্বজ্ঞানহীনের মতো এসব করবেন না। সরকারি হিসেব না পেলে কোনও তথ্য দেওয়া যাবে না। এসব তো মানুষের মনে ভীতি তৈরি করবে। আপনারা দেখাচ্ছেন, ৬ জনের মৃত্যু। অথচ বাকি ৩ জনের মৃত্যুর খবর সরকারের কাছে নেই।” এ প্রসঙ্গে তিনি সুপ্রিম কোর্টের নয়া নির্দেশিকার উল্লেখও করেন। এরপর মুখ্যমন্ত্রী সকলের কাছে আবেদন জানিয়ে বলেন, “লকডাউন সফল করুন। সামনের দুটো সপ্তাহ অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। এই সময়ে খুবই সাবধানে থাকতে হবে। শরীরের যত্ন নিতে হবে। সিদ্ধভাত খান পেটভরে, জল খান বেশি করে। রাস্তায় বেরিয়ে এখনও আড্ডা চলছে। এটা চলবে না। আড্ডার অনেক সময় পাবেন। আপাতত এগুলো বন্ধ রাখুন। তা নইলে লকডাউন করেও সংক্রমণ রোখা যাবে না। আমরা স্টেজ থ্রি-তে পৌঁছে যাব।” ফের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে উষ্ণ জলে লেবুর রস দিয়ে খাওয়ার পরামর্শ দিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। লকডাউনে নিজেও ঘরবন্দি, সবসময় যে তা ভাল লাগছে না, এদিন তাও স্বীকার করে নিলেন মমতা। সাংবাদিক বৈঠক শেষ করে মুখ্যমন্ত্রী চলে যান নেতাজি ইন্ডোরে, কলকাতা পুলিশের রক্তদান শিবিরে।



Pages